জেনে নিন মুখ ধোয়ার সঠিক নিয়ম

life stayলাইফস্টাইল ডেস্ক: পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকার জন্য এবং নিজেকে ফ্রেশ দেখাতে আমরা প্রতিদিন কয়েক বার মুখ ধুয়ে থাকি। মুখের অতিরিক্ত তেল, ধুলা-ময়লা পরিষ্কার করে নিজেকে ফ্রেশ দেখাতে হুটহাটই মুখে সাবান দেই। কিন্তু জানেন কি, অতিরিক্ত মুখ ধোয়া ত্বকের জন্য ক্ষতিকর। তাই অতিরিক্ত মুখ ধোয়া ঠিক নয়। শুধু তাই নয়, মুখ ধোয়ায় আমরা কিছু ভুল করে থাকি, যা ত্বকের জন্য খুবই ক্ষতিকর। চলুন জেনে নেই মুখ ধোয়ার সঠিক নিয়ম।

অনেকেই আছেন যারা সকালে ঘুম থেকে উঠে সাধারণত মুখ পরিষ্কার করতে চান না। ভেবে থাকেন সকালে মুখ পরিষ্কার করার কী দরকার? কিন্তু খেয়াল করে দেখবেন সকালে মুখটা বেশ তেলতেলে হয়ে থাকে। তাই সকালে ঘুম থেকে উঠে মুখটা করে পরিষ্কার করবেন।

পছন্দের ফেসওয়াশ বা সাবান দিয়ে মুখটা ধুয়ে নেন, দেখুন কেমন উজ্জ্বল হয়ে গেছে। সকালে মুখ পরিষ্কার না করলে তেলটা ত্বকে বসে যায় যা ত্বকের জন্য ক্ষতিকর। তাই সকালে মুখ পরিষ্কার করার নিয়ম মেনে চলুন।

অতিরিক্ত মুখ ধোয়া ত্বকের জন্য ক্ষতিকর। তাই বিশেষজ্ঞদের মতে, মুখ বার বার নয়, দুইবার ধোয়ায় যথেষ্ট। মুখ তেলেতেলে লাগলে টিস্যু দিয়ে মুছে নেওয়া যেতে পারে, তবে ধোয়া নয়।

শুধু পানির ঝাপটা দিয়ে ধুলে চলবে। কিন্তু ভুলেও ফেসওয়াশ বা সাবান নয়। তাই বার বার সাবান দিয়ে মুখ ধোয়া থেকে বিরত থাকতে হবে।

মুখ পরিষ্কার করার শ্রেষ্ঠ সময় রাত। তাই ত্বকের যত্নে রাতে ভালো করে মুখ পরিষ্কার করবেন। কেননা রাতে মুখ পরিষ্কার করলে ত্বক বেশি সময় বিশ্রাম নিতে পারে এতে ত্বক উজ্জ্বল হয়।

ভুল সাবান বা ফেসওয়াশ নির্বাচন ত্বকের জন্য আরো বেশি ক্ষতিকর। কোন ত্বকের জন্য কোন ফেসওয়াশ সেটা জেনে তারপর ফেসওয়াশ বা সাবান নির্বাচন করুন।

সেক্ষেত্রে ত্বকের ধরন বুঝে নেওয়া ভালো। যেমন ত্বক যদি তৈলাক্ত হয় তাহলে তেল দূর করার ফেসওয়াশ বা সাবান নির্বাচন করতে হবে। ঠিক একইভাবে শুষ্ক বা মিশ্র ত্বকের বেলায় করতে হবে।

মুখ পরিষ্কার করতে পানির ব্যবহার কেমন করবেন সেটাও ত্বকের ধরনের ওপর নির্ভর করে। গরম পানি না ঠাণ্ডা পানি কোনটা আপনার ত্বকের জন্য উপকারী সেটা আগে জেনে নেওয়া উচিৎ।

তবে গরম পানি ব্যবহার করার পর অবশ্যই স্বাভাবিক তাপমাত্রার পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে নেবেন। কেননা গরম পানিতে লোম কূপগুলো খুলো যায়। তাই গরম পানি দিয়ে মুখ ধোয়ার পর ঠাণ্ডা বা স্বাভাবিক তাপমাত্রার পানিতে মুখ ধুবেন যাতে লোমকূপ আবার আগের অবস্থানে যায়।

স্ক্রাব করলে ত্বক উজ্জ্বল হয় বটে, তবে অতিরিক্ত স্ক্রাব ত্বকের জন্য ক্ষতিকর। তাই অতিরিক্ত স্ক্রাব ভুলেও করবেন না। এতে ত্বক শুষ্ক হয়ে যায়। তাই স্ক্রাব করবেন সপ্তাহে একদিন।

কিছু টিপস

. মুখ ধোয়ার সময় খুব বেশি ঘষাঘষি করবেন না। নরম তোয়ালে দিয়ে হালকাভাবে মুখ মুছে নিন।

. মুখ ধোয়ার তিন মিনিট পর মুখে ময়েশ্চারাইজার লাগান। শুষ্ক ত্বকে ক্রিমসমৃদ্ধ ময়েশ্চারাইজার ও তৈলাক্ত ত্বকে অয়েল ফ্রি ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন।

. মেকআপ তুলতে কখনোই ফেসওয়াশ ব্যবহার করবেন না। প্রথমে মেকআপ রিমুভার অথবা অলিভ অয়েল দিয়ে মেকআপ তুলে নিন। এরপর ফেসওয়াশ দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন।

. অনেকে ক্লিনজার, টোনার ও ময়েশ্চারাইজার রুটিন করে ব্যবহার করেন। কিন্তু ব্যবহারের সময় খেয়াল করুন, পণ্যগুলো আপনার ত্বকে ব্যবহার উপযোগী কি না।

. প্রথমে কোনো বিউটি পণ্য ব্যবহারের পর ৪৮ থেকে ৭২ ঘণ্টা অপেক্ষা করুন। যদি এর কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া না হয়, তাহলে ব্যবহার করুন। আর যদি র্যা শ হয়, তাহলে সেই পণ্য ব্যবহার না করাই ভালো।

. অনেকে ফেসওয়াশের পরিবর্তে দুধ অথবা টক দই ব্যবহার করেন। কিন্তু এটি মুখ পরিষ্কারে ততটা কার্যকর নয়। এমনকি সাবানও মুখ তেমন পরিষ্কার করতে পারে না। এ ক্ষেত্রে ফেসওয়াশ বেছে নেওয়াই ভালো। তবে ত্বকের সঙ্গে মিলিয়ে ফেসওয়াশ বাছাই করুন।