১৯ বলে ডি ভিলিয়ার্সের হাফ সেঞ্চুরি

স্পোর্টস ডেস্ক: ব্যাট হাতে এবি ডি ভিলিয়ার্স মাঠে নামা মানেই ঝড় ওঠা। এটা যেন এক অমোষ বিষয়। সেটা হোক টেস্ট, ওয়ানডে কিংবা টি-টোয়েন্টি। এ যেমন দক্ষিণ আফ্রিকার ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট র্যাম স্ল্যাম ট্রফির শুরুতেই ব্যাট হাতে ঝড় তুললেন প্রোটিয়া এ মারকুটে ব্যাটসম্যান। ১৯ বলেই তার ব্যাট থেকে এলো দুর্দান্ত এক হাফ সেঞ্চুরি। তার টর্নেডো গতির ব্যাটিংয়ের ওপর ভর করে র‌্যাম স্ল্যাম ট্রফিতে নিজেদের প্রথম ম্যাচেই লায়ন্সকে ৮ উইকেটে হারালো টাইটান্স।

বৃষ্টি বিঘ্নিত ম্যাচটিকে স্রেফ টি-টোয়েন্টি বলা যাবে না। কারণ ম্যাচটি হয়েছিল ১৫ ওভারের। এমন ম্যাচেও ডি ভিলিয়ার্সের টাইটান্সের জন্য জয়ের কাজটি ছিল কঠিন। কারণ, সেঞ্চুরিয়নের সুপার স্পোর্টস পার্কে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে লায়ন্স ১৫ ওভার খেলার পর বৃষ্টির কবলে পড়ে। ৬ উইকেট হারিয়ে এই ১৫ ওভারে ১২৭ রান তুলতে সক্ষম হয় তারা। রেজা হেন্ডরিক্স করেন ৪২ বলে ৬৭ রান।

বৃষ্টি থামার পর ডি ভিলিয়ার্সের টাইটান্সের সামনে জয়ের জন্য লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয় সেই ১৫ ওভারেই ১৩৫ রানের। জবাব দিতে নেমে মাত্র ১১.২ ওভারেই ২ উইকেট হারিয়ে জয়ের লক্ষ্যে পৌঁছে যায় টাইটান্স। ২৪ বলে ৩৯ রান করেন কুইন্টন ডি কক। ৯ বলে ৫ রান করেন হেনরি ডেভিডস। অধিনায়ক অ্যালবি মর্কেল ১৬ বলে অপরাজিত থাকেন ৪১ রানে এবং এবি ডি ভিলিয়ার্স ১৯ বলে করেন ৫০ রান।

ব্যাম স্ল্যামের অন্য এক ম্যাচে কেপ কোবরার বিপক্ষে ২ উইকেট হারিয়ে ২৩১ রান করেছে ডলফিনস। সারেল ইরুই ৫৮ বলে একাই ১০৩ রান করে অপরাজিত থাকেন। অধিনায়ক খায়া জোন্ডো ৩৪ বলে করেন ৬৭ রান। জবাব দিতে নেমে কেপ কোবরাও কম ছিল না। ১০ ওভারেই ৩ উইকেট হারিয়ে ১০৮ রান তুলে ফেলে তারা। ২৭ বলে ৫২ রান করেন হাশিম আমলা। ১৯ বলে ৩৭ রান করেন এমগিজিমা। এরপর বৃষ্টি শুরু হলে ডার্কওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে ১৫ রানে জয় পায় ডলফিন্স।