রাতে হাতকড়াসহ পলাতক আসামির লাশ মিলল ভোরে

স্টাফ রিপোর্টার : যশোর-নড়াইল সড়কের আয়াপুর এলাকায় গুলিবিদ্ধ এক ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধা করেছে পুলিশ। পুলিশের ভাষ্য সোমবার ভোররাতে দু’দল মাদক ব্যবসায়ীর মধ্যে গোলাগুলিতে তার মৃত্যু হয়েছে।

নিহত সাব্বির বাঘারপাড়ার খলিলপুর গ্রামের সাইদুল ইসলামের ছেলে। বাঘারপাড়া থানার ওসি শেখ মতিয়ার রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশের দাবি, রোববার রাতে সাব্বিরের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে অস্ত্র, মাদক উদ্ধার করা হয়। তবে ঘটনাস্থল থেকে হাতকড়াসহ তিনি পালিয়ে যান।

এসআই নিয়ামুল জানান, তিনি ফোর্সসহ রাতে হাইওয়ে ডিউটিতে ছিলেন। এ সময় যশোর-নড়াইল সড়কের আয়াপুরে জনৈক নজরুল ইসলামের বাড়ির কাছে দুই দল মাদক বিক্রেতার মধ্যে গোলাগুলি হচ্ছে বলে জানতে পারেন। পুলিশ সেখানে উপস্থিত হলে মাদক বিক্রেতারা পালিয়ে যায়। পরে সেখানে এক যুবককে পড়ে থাকতে দেখা যায়। পরে পুলিশ তার পরিচয় নিশ্চিত হয়।

তার ঘাড়ের বাম পাশে মাথার নিচে এক রাউন্ড গুলি বিদ্ধ হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ১০৭ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার হয়েছে বলেও দাবি তাদের।

প্রসঙ্গত, রোববার বাঘারপাড়া থানা পুলিশ উপজেলার খলিলপুর গ্রামের সাইদুল ইসলামের বাড়িতে অভিযান চালায়। পুলিশের দাবি, ওই বাড়িতে অভিযান চালিয়ে অস্ত্র, মাদক, মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়। আটক করা হয় তিনজনকে। এর মধ্যে সাব্বির হোসেন (২৫) নামে একজন হাতকড়াসহ পালিয়েছে।