হাফসেঞ্চুরির পরপরই আউট মুশফিক

স্পোর্টস ডেস্ক : দলের সেরা ব্যাটসম্যান তিনি। কিন্তু গত শ্রীলঙ্কা সফরের ওয়ানডে সিরিজে ব্যাট হাতে ছিলেন চরম ব্যর্থ। প্রথম ম্যাচে করেছিলেন মাত্র ১ রান। বৃষ্টি বাগড়ার দ্বিতীয় ম্যাচে ব্যাট করতে পারেননি। তৃতীয় ম্যাচে শূন্য রানে আউট। মুশফিকুর রহীমের ব্যাটে ব্যর্থতার সেই ধারা ভর করেছিল ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচেও। গত শুক্রবার আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে মাত্র ১৩ রান করেই ফিরে যান প্যাভিলিয়নে। তবে সেই রানখরা থেকে বেরিয়ে দ্রুতই রানে ফিরলেন মুশফিক। বুধবার নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে মুশফিক তুলে নিয়েছেন ক্যারিয়ারের ২৪তম হাফসেঞ্চুরি। কিন্তু হাফসেঞ্চুরি করার পরপরই ফিরে গেছেন সাজঘরে। জেমি নিশামের দ্বিতীয় শিকার হয়েছেন ৫৫ রানে দাঁড়িয়ে। মুশফিকের বিদায়টা বড় ধাক্কা হয়েই এসেছে বাংলাদেশ শিবিরে। কারণ ১৩২ রানে ৪ উইকেট হারানোর পরও বড় সংগ্রহের স্বপ্নই দেখছিল বাংলাদেশ। দলকে স্বপ্ন দেখাচ্ছিল ভায়রা-ভাই মাহমুদউল্লাহর সঙ্গে তার ৪৯ রানের জুটি। কিন্তু মুশফিকের বিদায়ের পর সেই স্বপ্ন কিছুটা হলেও ধূসর।

এই প্রতিবেদন লেখার সময় বাংলাদেশের সংগ্রহ ৪০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৯০ রান। মাহমুদউল্লাহ ৩৪ ও মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত ব্যাট করছেন ৪ রান নিয়ে। এর আগে টস জিতে প্রথমে বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ে পাঠান নিউজিল্যান্ডের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক টম লাথাম। তবে কিউইদের বিপক্ষে বাংলাদেশের শুরুটা ভালোই হয়েছিল। তামিম ইকবাল ও সৌম্য সরকার উদ্বোধনী জুটিতেই করে ফেলেন ৭২ রান। কিন্তু এরপরই বাংলাদেশ শিবিরে জোড়া আঘাত। ৪২ বলে ২৩ রানের ধৈর্যশীল ইনিংস খেলে আউট হন তামিম। তাকে দ্রুতই অনুসরণ করেন সাব্বির রহমান। ফিরে যান মাত্র ১ রান করে। এরপর মুশফিক ও সৌম্য মিলে চেষ্টা করছিলেন দলকে টেনে তোলার। কিন্তু এরপরই কী হলো! আবারও জোড়া আঘাত। এবার যুগপত ফিরে যান সৌম্য ও সাকিব।

দলকে ১১৭ রানে রেখে ফিরে যান সৌম্য। তার আগেই অবশ্য ক্যারিয়ারের পঞ্চম হাফসেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন সৌম্য। ওয়ানডে ক্রিকেটে ২০১৫ সালের পর এটাই তার প্রথম হাফসেঞ্চুরি। সৌম্যর ব্যাট ইঙ্গিত দিচ্ছিল বড় ইনিংসেরই। কিন্তু ৬১ রানে দাঁড়িয়ে হঠাৎই বিলাসী এক শট খেলতে গেলেন সৌম্য। কিউই স্পিনার ইশ সোধিকে সুইপ করতে যাওয়ার খেসারত তাকে দিতে হয়েছে আউট হয়ে। ৬৭ বলের ইনিংসে তিনি চার মেলেছেন ৫টি। সৌম্যর বিদায়ের খানিক পরই আউট সাকিব। মাত্র ৬ রান করে সাকিবও ইশ সোধিরই শিকার।

স্লো ওভার রেটের কারণে এক ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা থাকায় গত শুক্রবার আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচে খেলতে পারেননি মাশরাফি। তার পরিবর্তে দলকে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন সাকিব আল হাসান। তবে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে নিয়মিত অধিনায়ক মাশরাফি ফিরেছেন একাদশে। দলের নেতাকে জায়গা করে দিতে একাদশের বাইরে চলে যেতে হয়েছে তাসকিন আহমেদকে। তবে  রুবেল হোসেন আছেন একাদশে।
দুই দলের একাদশ :

বাংলাদেশ :  তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, সাব্বির রহমান, মুশফিকুর রহীম, সাকিব আল হাসান, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মেহেদী হাসান মিরাজ, মাশরাফি বিন মুর্তজা (অধিনায়ক), মোস্তাফিজুর রহমান, রুবেল হোসেন।

নিউজিল্যান্ড : লুক রনকি, টম ল্যাথাম (অধিনায়ক), জর্জ ওয়ার্কার, রস টেলর, নিল ব্রুম, জেমস নিশাম, কলিন মুনরো, হাশিম ব্যানেট, মিশেল সান্তনার,  সেথ রান্স, ইশ সোধি